আমার জীবনে “স” “শ” এর প্রভাব :)

কাকতলীয় হলেও সত্য জীবনের বেশির ভাগ ঘটনার সাথে এই আদ্য অক্ষরের মানুষ এবং স্থান/জায়গা গুলো জড়িয়ে আছে।

আমার বংশীয় টাইটেল “সরকার”
জন্ম “সোনাখুলী” গ্রামে
থানা “সৈয়দপুর”
আমার প্রাইমারী স্কুলের
প্রধান শিক্ষকের নাম “শাহজাহান”
প্রাইমারী শেষ করে হাইস্কুলে ভর্তি হওয়ার সময়
স্কুলের অপশন ছিলো টেকনিক্যাল নয়ত ক্যান্ট পাবলিক। ক্যান্টে ভর্তি হয়েছিলাম, কিন্তু ইচ্ছে ছিলো টেকনিক্যাল স্কুলে। টেকনিক্যালে অপেক্ষামান তালিকায় ছিলাম।
যে ব্যক্তি ভর্তি হতে খুব সাহায্য করেছিলেন তিনি ছিলেন সৈয়দপুরের ডাঃ “সাত্তার” হোসেন।

এরপর ভর্তির দুবছর পর প্রিন্সিপাল হিসেবে পেয়েছিলাম, “সালাম” স্যার কে।

স্কুলে যাতায়াতে যে ভাইটি মাঝে মাঝে নিজের সাইকেলে উঠিয়ে বাসায় নিয়ে যেতেন উনি হলেন “সবুজ” ভাই।

স্কুলে যে স্যারকে বেশি ক্লাশ টিচার হিসেবে পেয়েছিলাম “সিদ্দিক” স্যার।

কলেজে যে ম্যাডাম সবচেয়ে বেশি পড়াশোনার খোজ নিতেন, যিনি ইসলামের ব্যাপারে সচেতন হতে অনুপ্রেরনা দিয়েছিলেন,
“সুলতানা জেসমিন” ম্যাডাম।

যে স্যারটি এক পরীক্ষায় খাতা নিয়েছিলেন “সারোয়ার জাহান”

কলেজ শেষ করে বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি হয়ে যে ছাত্রাবাসে বেশি ছিলাম তার নাম “সালাফিয়া”

সেই ছাত্রাবাস ছিলো মসজিদের সেই মসজিদের সভাপতির নাম ছিলো “সাত্তার”

বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি হয়ে যে স্যার বায়োকেমিষ্ট্র পড়তে পরামর্শ দিয়েছিলেন, যারা অনুপ্ররনা ইয়ার লস না দিয়ে বায়োকেমিষ্ট্রি পড়েছিলাম উনি কলেজের সেই “সালাম” স্যার।

বিশ্ববিদ্যালয়ে যে সমিতির/সংগঠনের সাথে প্রথম থেকে জড়িত ছিলাম, “সৈয়দপুর সমিতি”।

তৃতীয় বর্ষে বিশ্ববিদ্যালয় হলে উঠে হলে সীট পেতে সাহায্য করেছিলেন শিবিরের হল সভাপতি “সাত্তার” ভাই।

ইসলামী সংগঠনের সাথে জড়িয়ে পড়েছিলাম, যে ভাই ইসলামী মানোন্নয়ের জন্য শফথ দিয়েছিলেন, “সালেহী” ভাই।

দেশের পড়াশোনা শেষ করে দেশের বাইরে যে দেশে পড়তে আসলাম সেটি হলো “সুইডেন”

সুইডেনে প্রথম যে বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি হই তার নাম “Skovde”

Skovde থেকে যেখানে থাকতে আসলাম সে জায়গার নাম “স্টকহোল্ম”

স্টকহোল্মের যে জায়গায় সবচেয়ে বেশি ছিলাম, “স্যাতরা”

বায়োমেডিসিন এ মাস্টার্স শেষ করে যার কাছে থিসিস করেছিলাম, “ড. শহিদুল ইসলাম”

সে হসপিটালে মাস্টার্স থিসিস করি “সোদার খুইহুসেট”

সুইডেনে যে ভাই মাঝে মাঝে পরামর্শ দিতেন গবেষনার বিষয়ে উনি হলেন “সাইফুল” ভাই।

যার ভালো রিকমেন্ডেইশন পিএইচডি পজিশন পাইতে সাহায্য করেছে তিনি হলেন আমার মাস্টার্স সুপারভাইজর “শহিদুল ইসলাম”

স্টকহোল্ম থেকে উপশালায় চলে আসার পর যে জায়গায় আছি তার নাম, “স্যান্ডেলস গতান”

যার বাড়িতে আছি তার নাম “সাদেকুল ইসলাম”

হয়ত জীবনের সামনের দিন গুলোতে “স” “শ” য়েরা এভাবেই ঘোরাঘোরি করবে। 🙂 😉

মন্তব্য করুন

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out /  পরিবর্তন )

Google photo

You are commenting using your Google account. Log Out /  পরিবর্তন )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out /  পরিবর্তন )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out /  পরিবর্তন )

Connecting to %s